১৭ বছরের কিশোরীকে বিয়ে করলেন এমপি সাদিক

নিজের চেয়ে ২০ বছরের ছোট কিশোরীকে বিয়ে করলেন দিনাজপুর-৬ আসনের সংসদ সদস্য শিবলী সাদিক। কনের নাম খাদিজা মল্লিক শিমু। তিনি দিনাজপুরের হিলির মেয়ে।

গতকাল শনিবার (৮ জুন) রাতে শিবলী সাদিক ও খাদিজা শিমুর বিয়ে হয়।

খাদিজা মল্লিক শিমুর ফেসবুক প্রোফাইলে দেয়া তথ্য অনুযায়ী, তার বয়স ৮ জুন পর্যন্ত ১৭ বছর ১১ মাস ২৭ দিন। ২০০১ সালের ১২ জুন খাদিজা মল্লিক শিমুর জন্ম। হাকিমপুর মহিলা ডিগ্রি কলেজ থেকে ২০১৯ সালে এইচএসসি পরীক্ষা দিয়েছেন শিমু।

পাশাপাশি ১৯৮২ সালে সংসদ সদস্য শিবলী সাদিকের জন্ম। ২০১১ সালে শিবলী সাদিক ‘ক্লোজআপ ওয়ান’ খ্যাত কণ্ঠশিল্পী সালমাকে বিয়ে করেন। স্নেহা নামের একটি কন্যাসন্তান রয়েছে সালমার ঘরে।

শনিবার রাতে ১১ লাখ ৪০ হাজার ১০১ টাকা দেনমোহর ধার্য করে নগদে পরিশোধপূর্বক শিবলী সাদিক ও শিমুর বিয়ে পড়ান নবাবগঞ্জের নিকাহ রেজিস্ট্রার। বিবাহোত্তর অনুষ্ঠানে হিলি উপজেলা চেয়ারম্যান, পৌর মেয়র ও ইউপি চেয়ারম্যানসহ চার উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী, সরকারি কর্মকর্তা এবং উভয় পক্ষের আত্মীয়-স্বজন উপস্থিত ছিলেন। বিয়ের পর সংসদ সদস্য শিবলী সাদিকের চাচা দেলোয়ার হোসেন মণ্ডল নবদম্পতির জন্য সবার কাছে দোয়া চান।

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জের স্বপ্নপুরীতে বিয়ের অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। জনপ্রিয় পর্যটন স্থান স্বপ্নপুরী সংসদ সদস্য শিবলী সাদিকের পারিবারিক বিনোদন কেন্দ্র ও পিকনিক স্পট। এটি উত্তরবঙ্গের বৃহৎ বিনোদনকেন্দ্র হিসেবেও পরিচিত।

বিয়েতে আমন্ত্রিত অতিথিরা বিয়ের খবর জানতেন না। সাংবাদিক এবং রাজনৈতিক নেতাকর্মীদের বলা হয়েছিল ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের কথা। স্বপ্নপুরীতে গিয়ে বিয়ের খবর জানতে পারেন অতিথিরা।

মোস্তাফিজুর রহমান ফিজুর ছেলে শিবলী সাদিক সাংস্কৃতিক পরিমণ্ডলের মানুষ হিসেবে পরিচিত। এর আগে ২০১১ সালে শিবলী সাদিক ‘ক্লোজআপ ওয়ান’ খ্যাত কণ্ঠশিল্পী সালমাকে বিয়ে করেন। সালমার সঙ্গে টেলিভিশনের বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানেও অংশ নিতে দেখা গিয়েছিল এই সংসদ সদস্যকে।

২০১৬ সালে সালমার সঙ্গে তার বিচ্ছেদ হয়। শিবলী সাদিক এতদিন বিয়ের বন্ধনে না জড়ালেও ২০১৮ সালের শেষ দিকে কণ্ঠশিল্পী সালমা ময়মনসিংহের হালুয়াঘাটের ছেলে সানাউল্লাহ নূরে সাগরের সঙ্গে বিয়েবন্ধনে আবদ্ধ হন। সাগর পেশায় আইনজীবী।