নিজের সন্তান না হওয়ায় সৎ মেয়েকে গলাটি’পে হ’ত্যা করে লাশ পানিতে ফেলল রিনা

banglarjay1banglarjay1
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  04:01 AM, 14 June 2020

আবদুল লতিফ লায়ন, জামালপুর প্রতিনিধি- জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে শিশুকন্যাকে হ.ত্যার অভিযোগে সৎ মা রিনা আক্তার (২৬) কে আটক করেছে পু’লিশ। এর আগে অ’ভিযুক্ত রিনা আক্রান্ত নিজেই শিশু কন্যাকে গ’লাটি’পে হ.ত্যার পর পানিতে ডুবে নিহতের খবর প্রচার করে।
null

null

null
শুক্রবার (১২ জুন) রাতে উপজেলার ডোয়াইল ইউনিয়নের মাজালিয়া গ্রামের নিজবাড়ি থেকে থানা পু’লিশ তাকে আটক করে। পরে শনিবার (১৩ জুন) দুপুরে তাকে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।
null

null

null
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, বুধবার (১০ জুন) রাত ৮টার দিকে মাজালিয়া (ভূঁইয়াপাড়া) গ্রামের আবুল কালামের মেয়ে কনা আক্তারকে (৪) ঘরের পাশে একটি ডোবায় পড়ে থাকতে দেখে বাড়ির লোকজন। শিশুকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে তার সৎমা রিনা আক্তার শিশুটি পানিতে পড়ে নি’হত হয়েছে- মর্মে এলাকায় প্রচার করে।
null

null

null
ঘটনাটি নিয়ে এলাকায় সৎ মাকে ঘিরে স’ন্দেহের সৃষ্টি হয়। পরে শিশুটির বাবার মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে শুক্রবার রাতে সৎ মাকে পুলিশ আটক করে থানায় নেয়। পরে জিজ্ঞাসাবাদে চাঞ্চল্যকর তথ্য বেরিয়ে আসে।
null

null

null
নি’হত শিশুর বাবা আবুল কালাম জানান, দুই বছর আগে তার প্রথম স্ত্রী সালমা বেগম শারীরিক অসুস্থতায় মা’রা যান। তারপর তিনি মাজালিয়া গ্রামের ঈমান আলীর মেয়ে রিনা আক্তারকে বিয়ে করেন। তার গর্ভে কোনো সন্তান না হওয়ায় সে প্রথম স্ত্রীর সন্তানকে সহ্য করতে পারতো না। এ আ’ক্রোশে সে তার মেয়েকে গলাটি’পে হ’ত্যা করে লাশ পানিতে ফেলে দেয়।
null

null

null
এ ব্যাপারে সরিষাবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু মো. ফজলুল করীম জানান, শিশু কনা আক্তার পানিতে ডুবে মা’রা যায়নি, তাকে হ’ত্যা করা হয়েছে বলে জিজ্ঞাসাবাদে সৎ মা রিনা আক্তার পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে। ঘটনার দিন সন্ধ্যায় সৎমা শিশুটিকে টিউবয়েল পাড়ে ডেকে নিয়ে গলাটি’পে হ’ত্যা করে। তারপর তার মৃ’তদেহ পাশের ডোবার পানিতে ফেলে দেয়।
null

null

null
এ ব্যাপারে শিশুটির বাবা আবুল কালাম বাদি হয়ে তার স্ত্রীর বিরুদ্ধে সরিষাবাড়ী থানায় হ’ত্যা মা’মলা দায়ের করেছেন। আটককৃতকে শনিবার দুপুরে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে বলে ওসি জানান।
null

null

null

আপনার মতামত লিখুন :