টানা ২৯ দিন ভেন্টিলেটরে থাকা করোনা রোগীকে সাড়ে ৮ কোটি টাকা বিল ধরিয়ে দিল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ

banglarjay1banglarjay1
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  02:28 PM, 14 June 2020

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : করোনাভাইরাস থেকে সুস্থ হওয়ার পরপরই ধরিয়ে ধ’রিয়ে দেওয়া হলো ১.১ মিলিয়ন ডলারের বিল। বাংলাদেশি মুদ্রায় যা null

null

nullপ্রায় সাড়ে ৮ কোটি টাকা। বিলের অঙ্ক শুনেই ৭০ বছর বয়সী মাইকেল ফ্লরের নিজেকে বড়ই অপরা’ধী মনে হল। তিনি বলেন, সত্যিই, জীবন ফিরে পেয়ে যেন বড় অপরা’ধী হয়ে গেলাম। যুক্তরাষ্ট্রের সিয়াটলে ঘটেছে এ ঘটনা। null

null

null

মাইকেল তার অভিজ্ঞতা শেয়ার করতে গিয়ে বলেন, বিল তো নয়, যেন এক মোটা বই। ১৮১ পাতার বিলে খরচের খতিয়ান দেওয়া আছে। বিল শুনে কিছু ক্ষণ চোখ বুজে ছিলাম।

করোনায় আক্রা’ন্ত হয়ে সিয়াটলের ইসাকোয়ায় সুইডিস মেডিক্যাল সেন্টারে ভর্তি হন মাইকেল। অত্যন্ত গুরুতর প’রিস্থিতি নিয়েই ভর্তি null

null

nullহয়েছিলেন। বিলের অঙ্কই বলে দিচ্ছে তার অবস্থা কতটা স’ঙ্কটজনক ছিল। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, কিডনি, ফুসফুস, হৃদপিণ্ড কার্যত কাজ করা বন্ধ করে দিয়েছিল। টানা ২৯ দিন ছিলেন ভেন্টিলেটরে। প্রায় null

null

nullমৃ’ত্যুর দোরগোড়া থেকে মাইকেল ঘুরে এসেছেন বলে দাবি চিকিৎসকরদের। কিন্তু বিলের অঙ্ক শুনে ফের মৃ’ত্যুর দোরগোড়ায় যাওয়ার উপক্রম হয়ে গিয়েছিল মাইকেলের।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, আইসিউ-র প্রতিদিন ভাড়া ছিল ৯,৭৩৬ মার্কিন ডলার। টানা ৪২ দিন আইসোলেশন চেম্বারে থাকায় বিল null

null

null৪,০৮,৯২ ডলার। ভেন্টিলেটরে প্রতিদিন খরচ ২৮৩৫ ডলার। স্বাস্থ্য বিমা করা থাকায় পুরো বিল তাকে মেটাতে হয়নি। উল্টো কোভিড আক্রা’ন্ত হওয়ায় সরকার থেকে আর্থিক সাহায্য মিলেছে।

আপনার মতামত লিখুন :