যুক্তরাষ্ট্রে বসে গুলশানের ফ্ল্যাটের চোরকে পুলিশে ধরিয়ে দিল মালিক

banglarjay1banglarjay1
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  10:38 AM, 15 June 2020

সিসিটিভিতে চোরের নৃত্য দেখে হতবাক হয়ে যান মালিক। সিসিটিভিতে তিনি দেখেন চোর খাচ্ছে আর মজা করে গান বাজিয়ে নৃত্য করছো। সেই চোর মাসুদ খাবারের লোভে চুরি করতে এসে তিনদিন কাটিয়ে পুলিশের হাতে বন্দি হল।null

null

null

সম্প্রতি চুরির জন্য গুলশানের একটি ফ্ল্যাটে ঢোকে সে। কিন্তু সেখানে ঢুকে কাটিয়ে দেন তিনদিন। চুরির কথা ভুলে আরও কয়েকদিন থাকার পরিকল্পনা করে। মূলত সেখানে থাকা খাবার দেখেই বেশ কয়েকদিন থেকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন মাসুম।null

null

null

জানা গেছে, ফ্ল্যাটটির মালিক নর্থ অ্যান্ড কফির ব্যবস্থাপনা পরিচালক যুক্তরাষ্ট্রের রিচার্ড হাবার্ড। দীর্ঘদিন ধরে ক্যাফে বন্ধ থাকায় তিনি যুক্তরাষ্টে যান। ফ্ল্যাটটি খালি থাকলেও এর ভেতরে ছিল সিসিটিভি ক্যামেরা।
null

null

null
‘গুলশানের ঘরটি নিরাপদে আছে কি না’ নিজের মোবাইল ফোন থেকে যুক্তরাষ্ট্রের ঘরে বসেই নিয়মিত সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ দেখতেন রিচার্ড। তবে শনিবারের ফুটেজে হঠাৎ দেখতে পেলেন কেউ তার ঘরে হাঁটাহাঁটি করছে। ফ্রিজ থেকে খাবার ও ওয়াইন নিয়ে টেবিলে রেখে একnull

null

null যুবকের নাচের দৃশ্য দেখে অবাক তিনি। সঙ্গে সঙ্গে জানালেন তার বাংলাদেশের সহকর্মীকে।

সহকর্মী খবর দিলেন পুলিশে। শনিবার রাতে গুলশান এভিনিউয়ের ৮৯ নম্বর সড়কের ভবনে ঢোকে পুলিশ। সংযুক্ত ড্রয়িং ও ডাইনিং টেবিলে null

null

nullঅবস্থান নেয় তারা। কাউকে দেখতে না পেলেও টেবিলের ওপর কিছু রান্না করা খাবারভর্তি কড়াই, জুসের প্যাকেট ও ওয়াইনের বোতল দেখতে পান তারা।

null

null

null
পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে লুকিয়েছিলেন ওই যুবক। কয়েক মিনিটের মধ্যেই একটি বেডরুমের টয়লেট থেকে গ্রেফতার করা হয় তাকে। তার নাম মাসুম। সে মা’দকাসক্ত এবং পেশায় চোর।
null

null

null
ঘটনার সত্যতা গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন মাসুমকে ধরার অভিযানে থাকা গুলশান থানার ইন্সপেক্টর আমিনুল ইসলাম।

তিনি জানিয়েছেন, ‘মাসুমের বিরুদ্ধে ঢাকার একাধিক থানায় মামলা রয়েছে। চুরির জন্য গ্রেফতার হয়েছিল একবার। আচার-আচরণ দেখে ধারণাnull

null

null করা হচ্ছে তার মানসিক সমস্যা থাকতে পারে। সে ফুটপাথে থাকে, ফ্ল্যাট খালি পেয়ে এখানে থেকে গিয়েছিল। সিসিটিভি ক্যামেরায় আমরা ফ্ল্যাটটিতে তার খাওয়ার দৃশ্য দেখতে পাই।

আপনার মতামত লিখুন :